1. bbdbarta@gmail.com : Delowar Delowar : Delowar Delowar
  2. bbdbartabd@gmail.com : Delower Hossain : Delower Hossain
  3. jmitsolution24@gmail.com : support :
বৃহস্পতিবার, ২২ ফেব্রুয়ারী ২০২৪, ০৯:৪০ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম :
একুশের প্রথম প্রহরে কেন্দ্রীয় শহীদ মিনারে ভাষাশহীদদের প্রতি রাষ্ট্রপতি ও-প্রধানমন্ত্রীর শ্রদ্ধা নিবেদন । গোপালগঞ্জে অপরূপ রূপে প্রকৃতিকে সাজাতে আসছে ঋতুরাজ বসন্তের শিমুল ফুল মুকসুদপুরে বাসের সঙ্গে মোটরসাইকেল মুখোমুখি সংঘর্ষে নিহত-১ আহত-১৬ জন আজ বাংলাদেশের বিশ্ববরেণ্য পরমাণুবিজ্ঞানী ড. এম এ ওয়াজেদ মিয়ার ৮২তম জন্মবার্ষিকী রাজৈরের কদমবাড়ি বাজারে অবৈধ ব্যান্ডরোলের বিড়ি বিক্রি করায় ৩ ব্যবসায়ীকে জরিমানা আজ রাঘদী ইউনিয়নের সাবেক চেয়ারম্যান মরহুম শাহাবুদ্দিন খানের ৬ষ্ঠ মৃত্যুবার্ষিক মাদারীপুরে আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে ছাত্রলীগের ২গ্রুপের সংঘর্ষ আহত-৭ গুলিবিদ্ধ-১জন রাজৈর উপজেলার কদমবাড়ি ইউনিয়নে গাছ থেকে পড়ে প্রাণ গেলএক যুবকের আ:লীগ নেতা সাইদুর রহমান টুটুলের মামলায় কাবির মিয়া সহ ৬ জন গেফতার মুকসুদপুরে আ:লীগ নেতার উপর সন্ত্রাসী হামলাকারীদের গ্রেফতারের দাবিতে রাঘদী ইউনিয়নে বিক্ষোব সমাবেশ

আজ পয়লা ফাল্গুন ঋতুরাজ বসন্তের আগমন।

  • Update Time : সোমবার, ১৪ ফেব্রুয়ারী, ২০২২
  • ৬৫৩ Time View

দৈনিক বঙ্গবন্ধু দেশ বার্তা : আজ পয়লা ফাল্গুন ঋতুরাজ বসন্তের প্রথম দিন  নিরাভরণ বৃক্ষে কচি কিশলয় জেগে উঠবার আভাসে আর বনতলে কোকিলের কুহুতান জানান দিচ্ছে ‘আজি বসন্ত জাগ্রত দ্বারে..। গণমানুষের কবি সুভাষ মুখোপাধ্যায়ের ভাষায় ‘ফুল ফুটুক না ফুটুক/ আজ বসন্ত… গোলাপের সুবাস আজ না ছড়াক/ কুসুমকলি আজ না হোক জীবন, তবু আজ বসন্ত..।’

শীতের স্পর্শে ঘুমিয়ে পড়া, বিবর্ণ জারুল-পারুল, মাধবী-মালতী-রজনীগন্ধা, পলাশ-জবা, কৃষ্ণচূড়া-দোপাটি, কনকচাঁপার গুচ্ছ আড়মোড়া ভেঙে আন্দোলিত হবে দখিনা বাতাসে নবজীবনের স্পন্দনে।

শীতের রুক্ষ, রিক্ত, হিমেল দিনের অবসান ঘটিয়ে বসন্ত আসার কথা থাকলেও দেশ থেকে এখনো শৈত্যপ্রবাহ বিদায় নেয়নি। তবুও আজ যেন কিসের শিহরিত স্পর্শ, অবাক ছোঁয়া, যেন সোঁদা মাটি আর বহেরা ফুলের গন্ধ মেশানো। পুরো প্রকৃতিতে চলছে ‘মনেতে ফাগুন এলো..’ আবহ।

কচি পাতায় আলোর নাচনের মতোই বাঙালি তরুণ মনে লাগে দোলা। হূদয় হয় উচাটন। ‘ফুলের বনে যার পাশে যাই তারেই লাগে ভালো..’ কবিগুরুর এই পুলকিত পঙ্ক্তিমালা বসন্তেই কি সকলের বেশি মনে পড়ে? কৃষ্ণচূড়া লাল হয়েছে ফুলে ফুলে, তুমি আসবে বলে …।

জাতীয় কবি কাজী নজরুল ইসলামের ভাষায়, ‘ফাগুন এলো বুঝি মহুয়া-মালা গলে/চরণ-রেখা তার পিয়াল-তরুতলে/পরাগ-রাঙা চেলি অশোক দিল মেলি’। বসন্ত বাতাসে পুলকিত ভাটিবাংলার কণ্ঠ শাহ আবদুল করিম গেয়ে ওঠে, ‘বসন্ত বাতাসে..সই গো/বসন্ত বাতাসে/বন্ধুর বাড়ির ফুলের গন্ধ আমার বাড়ি আসে…’।

মানুষের মতোই এ সময় পাখিরাও প্রণয়ী খোঁজে। বাসা বাঁধে। রচনা করে নতুন পৃথিবী। শীতের রুক্ষ, রিক্ত, হিমেল দিনের অবসান ঘটিয়ে বসন্ত আসার কথা থাকলেও দেশ থেকে এখনো শৈত্যপ্রবাহ বিদায় নেয়নি। তবুও আজ যেন কিসের শিহরিত স্পর্শ, অবাক ছোঁয়া, যেন সোঁদা মাটি আর বহেরা ফুলের গন্ধ মেশানো। পুরো প্রকৃতিতে চলছে ‘মনেতে ফাগুন এলো..’ আবহ।

কচি পাতায় আলোর নাচনের মতোই বাঙালি তরুণ মনে লাগে দোলা। হূদয় হয় উচাটন। ‘ফুলের বনে যার পাশে যাই তারেই লাগে ভালো..’ কবিগুরুর এই পুলকিত পঙ্ক্তিমালা বসন্তেই কি সকলের বেশি মনে পড়ে? কৃষ্ণচূড়া লাল হয়েছে ফুলে ফুলে, তুমি আসবে বলে …।

জাতীয় কবি কাজী নজরুল ইসলামের ভাষায়, ‘ফাগুন এলো বুঝি মহুয়া-মালা গলে/চরণ-রেখা তার পিয়াল-তরুতলে/পরাগ-রাঙা চেলি অশোক দিল মেলি’। বসন্ত বাতাসে পুলকিত ভাটিবাংলার কণ্ঠ শাহ আবদুল করিম গেয়ে ওঠে, ‘বসন্ত বাতাসে..সই গো/বসন্ত বাতাসে/বন্ধুর বাড়ির ফুলের গন্ধ আমার বাড়ি আসে.।

বসন্তের বন্দনা করে একটি পঙ্ক্তিও লেখেননি, এমন বাঙালি কবি খুঁজে পাওয়া যাবে না। ঋতুরাজ বসন্তের দিনগুলো অপার্থিব মায়াবী এক আবেশ ঘিরে রাখবে বৃক্ষ, লতা, পাখ-পাখালী আর মানুষকে। মন রাঙিয়ে গুনগুন করে অনেকেই গেয়ে উঠবেন—‘মনেতে ফাগুন এলো..’।

বসন্ত মানেই পূর্ণতা। বসন্ত মানেই নতুন প্রাণের কলরব। বাঙালি জীবনে বসন্তের আগমন বার্তা নিয়ে আসে ‘আমার ভাইয়ের রক্তে রাঙানো একুশে ফেব্রুয়ারি’। এ বসন্তেই ভাষা আন্দোলনের মধ্য দিয়ে বাঙালির স্বাধীনতার বীজ রোপিত হয়েছিল। বসন্তেই বাঙালি মুক্তিযুদ্ধ শুরু করেছিল।

তাই কেবল প্রকৃতি আর মনে নয়, বাঙালির জাতীয় ইতিহাসেও বসন্ত আসে এক বিশেষ মাহাত্ম্য নিয়ে। তবে এখন শহরের যান্ত্রিকতার আবেগহীন সময়ে বসন্ত যেন কেবল বৃক্ষেই শোভিত হয়, মানুষের আবেগে নাড়া দেয় কম। করোনার পরিস্হিতির কারণেও এবার সীমিত অনুষ্ঠানমালার আয়োজন করা হয় ঢাকাসহ সারা দেশে।

 

Please Share This Post in Your Social Media

Leave a Reply

Your email address will not be published.

More News Of This Category
© All rights reserved © 2024